আমেরিকায় গ্রীন কার্ডের জন্যে আবেদন করেছেন শাকিব খান  

১৯৮৩ সালের ২৮ মার্চ নারায়ণগঞ্জে জন্মগ্রহণ করেন ঢাকাই ছবির শীর্ষ নায়ক শাকিব খান। প্রিয় নায়ককে ভালোবেসে কেউ কেউ ঢালিউড কিং বলে ডাকেন। দেড় দশকেরও বেশি সময় ধরে অভিনয় করে চললেও কিং খান হিসেবে শাকিবের উত্থানটা ২০০৮ সালের দিকে।

এখন ঢাকাই ছবির শীর্ষ নায়ক তিনি। বলা হয়ে থাকে তিনিই ইন্ডাস্ট্রি! তাকে ঘিরেই এখানে টাকা লগ্নি হয়; ব্যবসার বীজ বোনেন প্রযোজক-হল মালিকরা। অনেক নতুন মুখ আসে আবার হারিয়েও যাচ্ছে। কিন্তু শাকিব বহাল তবিয়তে রাজার আসনে বসে আছেন বাংলা ছবির নায়কদের রাজত্বে।

চলতি বছরে অন্তরাত্মা, লিডার, গলুই সিনেমাগুলোর শুটিং শেষ করেছেন ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খান। করোনা পরবর্তী সময়ে কাজে বেশ সরব হয়েছেন এই নায়ক। শুধু তাই নয়।  এসএমসি ওরস্যালাইন ও বার্জার পেইন্টসের দুটি বিজ্ঞাপনে কাজও করেছেন শাকিব।

গেল ১২ নভেম্বর প্রথমবারের মতো নিউ ইয়র্কে গেছেন দেশের জনপ্রিয় ও আলোচিত নায়ক শাকিব খান। একটি অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি হয়ে সেখানে গেছেন তিনি। আর সেখান থেকে শাকিব ঘোষণা দিয়েছেন নতুন ছবির।

সম্প্রতি আমেরিকায় অবস্থান করছেন এই নায়ক। নতুন খবর হল, আমেরিকায় গ্রীন কার্ডের জন্যে আবেদন করেছেন এই সুপারস্টার। সহসাই দেশে ফিরছেন না শাকিব। আমেরিকার গ্রীণ কার্ড পেতে হলে তাকে কয়েক মাস অবস্থান করতে হবে আমেরিকায়।

জানা গেছে, শাকিবের প্রযোজনায় নির্মিতব্য ‘প্রিয়তমা’র পরিচালক হিমেল আশরাফ। বাংলা ভাষায় তৈরি নতুন ছবিটির প্রযোজকও একাধিক। আগামীতে এসকে ফিল্মস থেকে ‘প্রিয়তমা’ বানাবেন শাকিব।

You might also like