এক্সট্র্যাকশনের নকল ট্রেলার তৈরি করে বাজিমাত

কিছুদিন আগে নেটফ্লিক্সের এক্সট্রাকশন ছবিটি বাংলাদেশে বেশ আলোচিত- সমালোচিত হয়েছিল। অনেকদিন ধরে ট্রেন্ডিং এ এক নম্বরেও ছিল। তার একটি অন্যতম কারণ ছিল এই ছবিটির শুটিং এবং কাহিনী বাংলাদেশকে ঘিরে। করোনার এই সময়েও অনেক তরুণ এক্সট্র্যাকশনের ‘বাংলাদেশ’ দেখে শিহরিত, অনেকে চূড়ান্ত বিরক্ত।

তবে বাংলাদেশ পেরিয়ে এই ছবি নিয়ে নাইজেরিয়ায় এখন তুমুল হইচই। কারণ দেশটির স্কুল পড়ুয়া খুদে কয়েকজন অভিনেতা ও নির্মাতা ছবিটির নকল ট্রেলার তৈরি করে চমকে দিয়েছে খোদ সুপারস্টার ক্রিস হেমসওয়ার্থকে।

নাইজেরিয়া ছোট শিশুদের প্রতিভা দেখে মুগ্ধ হয়েছেন ছবির প্রযোজক জো রুশো ও অ্যান্থনি রুশোও। ইকোরডো বোইস নামে শিশুদের এই গ্রুপটি নজরে এসে নেটফ্লিক্সর ও । ট্রেলারটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে শেয়ার করেছে তারা।

শিশুরা মূল ট্রেলারটির মূলত ‘মিম’ তৈরি করেছে। হুবহু অভিনয়ের পাশাপাশি তাদের অভিব্যক্তিও কোনও কোনও ক্ষেত্রে মূল ট্রেলারকে ছাপিয়ে গেছে। আর এতে হলিউডের ভারী ভারী যন্ত্র ও গাড়ির ক্ষেত্রে তারা ব্যবহার করেছে ময়লা ফেলা ট্রলি ও খেলনা গাড়ি।

ইকোরডো বেইস এর দলে আছেন সানি ভ্রাতৃদ্বয় মুইজ ও মালিক। এতে অভিনয় করেছেন তাদের কাজিন ফাওয়াজ আইনা। ভিডিওটি এডিট করেছে তাদের বড় ভাই বাবাটুন্ডে।

শুধু এখানেই কিন্তু গল্প শেষ নয়। ভিডিওটি দেখে প্রযোজক জো রুশো ও অ্যান্থনি রুশো ‘এক্সট্র্যাকশন-২’এর প্রিমিয়ারের জন্য আমন্ত্রণ জানিয়েছেন এই নাইজেরিয়ান শিশুদের।