কক্সবাজারের স্বাভাবিক জীবন ফিরে পেতে অস্ত্র-গুলি সহ আত্মসমর্পণ করছে জলদস্যু দল

১৭৮

কক্সবাজারের দ্বীপ এলাকা মহেশখালী-কুতুবদিয়া’র সশস্ত্র জলদস্যুরা সমান তালে দস্যুতা সহ নানা অপরাধমূলক কর্মকান্ড, তাদের ত্রাসের কারনে আতংকিত, উপকূলবর্তী এলাকায় জেলে পরিবারসহ পুরো কক্সবাজারবাসী।

সম্প্রতি সুন্দরবনে একাধিক দস্যু বাহিনী র‌্যাবের হাতে আত্মসমর্পনের পর কক্সবাজারের জলদস্যুরা স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসার জন্য নানা তৎপরতা চালিয়ে আসছিল। এরই ধারাবাহিকতায় র্দীঘ দিন পর শনিবার সকালে মহেশখালী আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে প্রধান অতিথি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল, ও র‌্যাব এর মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদের উপস্থিতে আনুষ্ঠানিকতার মাধ্যমে বিপুল অস্ত্র-সন্ত্র সহ ৪৩ জন জলদস্যু আত্মসমর্পণ করেছে। র‌্যাব সূত্রে জানা যায়, জলদস্যুরা স্বাভাবিক জীবন ফিরে পেতে মহেশখালী-কুতুবদিয়ার স্বরাষ্ট্রমন্ত্রনালয়ের তালিকাভূক্ত ১২ জন জলদস্যু সহ ৬ টি জলদস্যু বাহিনীর ৪৩ জন সক্রিয় সদস্য ৯৪ টি দেশি-বিদেশী অস্ত্র ও ৭৬৩৭ রাউন্ড গুলি সহ র‌্যাবের নিকট আত্মসমর্পন করে।

এই জলদস্যুদের মধ্যে রয়েছে আনজু বাহিনী রয়েছে ১০ জন, রমিজ বাহিনীর ০২ জন, নুরুল আলম প্রকাশ কালাবদা বাহিনীর ৬ জন, জালাল বাহিনীর ১৫ জন, আইয়ুব বাহিনী ৯ জন, আলাউদ্দিন বাহিনী’র ১ জন।

এ সময় অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন র‌্যাব ৭ এর প্রধান লেঃ কর্নেল মিফতাহ উদ্দিন আহমেদ, সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ্ রফিক ও সাইমুম সরওয়ার কমলসহ আরো অনেকে।

নিউজ ডেস্ক / বিজয় টিভি

You might also like