তিন বিসিএসে নিয়োগবঞ্চিত ৮৪ জনকে নিয়োগ দিতে হাইকোর্টের নির্দেশ

৩৬, ৩৭ ও ৩৯তম তিনটি বিসিএসে পরীক্ষায় বিভিন্ন ক্যাডারে উত্তীর্ণ এবং পাবলিক সার্ভিস কমিশনের সুপারিশপ্রাপ্ত ৮৪ জনকে নিয়োগ দিতে নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট।

বুধবার (৫ জানুয়ারি) এই সংক্রান্ত রুল নিষ্পত্তি করে বিচারপতি মামনুন রহমান ও বিচারপতি খোন্দকার দিলীরুজ্জামানের বেঞ্চ এই রায় দেন। রায়ে এসব প্রার্থীকে দ্রুত নিয়োগ দিতে বলা হয়েছে।

তবে প্রার্থীর ব্যক্তিগত রিপোর্ট নেতিবাচক হলে সে ক্ষেত্রে নিয়োগ পাবেন না বলেও রায়ে বলা হয়েছে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত দাশগুপ্ত এ কথা জানান। তিনি বলেন, ব্যক্তিগত রিপোর্ট বিবেচনায় নিতে বলা হয়েছে। কেননা, কারও বিরুদ্ধে মামলা বা অন্য কোনো অভিযোগ থাকতে পারে। হাইকোর্টের রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হবে।

রিটের পক্ষে আইনজীবী মোহাম্মদ ছিদ্দিক উল্লাহ্ মিয়া ও মিজানুর রহমান শুনানি করেন। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত দাশগুপ্ত।

ছিদ্দিক উল্লাহ্ মিয়া বলেন, এ রায়ের ফলে রিটকারীরা ন্যায় বিচার পেয়েছেন এবং এতে তাদের নিয়োগের পথ সুগম হলো। তবে কোনো প্রার্থীদের বিরুদ্ধে কোনো নির্দিষ্ট মামলা থাকলে তিনি নিয়োগ পাবেন না।

ছিদ্দিক উল্লাহ্ মিয়া আরও বলেন, বারবার জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে যোগাযোগ করেও নিয়োগ না পেয়ে এই ৮৪ জন প্রার্থী পৃথক ৪টি রিট করেন। এরপর হাইকোর্ট রুল জারি করেন। ওই রুল নিষ্পত্তি করে এই রায় দেয়া হয়েছে।

২০২০ সালে ৩৬, ৩৭ ও ৩৯তম বিসিএস পরীক্ষায় চূড়ান্তভাবে উত্তীর্ণ হয়ে নিয়োগবঞ্চিত ৮৪ জন পৃথক পৃথক রিট করেন। এর মধ্যে ৩৬তম বিসিএসের ১০ জন, ৩৭তম বিসিএসের ৩৮ জন ও ৩৯তম বিসিএসের ৩৬ জন পৃথক চারটি রিট করেন।

You might also like