দেশে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করার মূল পরিকল্পনা হয়েছে লন্ডনে বসে : তথ্যমন্ত্রী

দুর্গাপূজায় সাম্প্রদায়িক সম্প্রতি বিনষ্ট করার মূল পরিকল্পনা লন্ডনে হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন তথ্য ও সম্পচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

মঙ্গলবার দুপুরে রাজশাহীর সার্কিট হাউজে জেলা প্রশাসন আয়োজিত প্রেস ব্রিফিংয়ে তিনি এ মন্তব্য করেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, দীর্ঘ এক মাস ধরে লন্ডনে বসে সারাদেশে সাম্প্রদায়িক সম্প্রতি বিনষ্ট করার পরিকল্পনা হয়। বিএনপি প্রকাশ্য ম্যাসব্যাপী বৈঠক করলেও অন্তরালে ছিল এই যড়যন্ত্র।

তিনি জানান,এঘটনায় ১০২টি মামলা হয়েছে। ৭’শর মত দুষ্কৃতি গ্রেফতার আছে। এ ঘটনার ইন্ধনদাতাদেরও খুঁজে বের করে বিচারের আওতায় আনবে সরকার।

হাছান মাহমুদ বলেন, দুর্গাপূজায় হনুমানের মূর্তির কাছে কোরআন শরিফ যে রেখেছে, তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সে তো রাখেনি আসলে, সে কারও ফরমায়েসে সেখানে রেখে এসেছে। কারা এর পেছনে আছে, সেটি খুব সহসা বের হবে। খুবই স্পষ্ট যে, কারা এগুলো ঘটিয়েছে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, সাম্প্রদায়িক চেতনা নিয়ে রাজনীতি করে বিএনপি-জামায়াত, ধর্মান্ধ-উগ্রবাদীরা। বাংলাদেশের কোনো সম্প্রদায়ের লোক অপরের ধর্মগ্রন্থ অবমাননা করার মানসিকতা পোষণ করে না। যারা এটি করেছে এবং যারা প্ররোচনা দিয়েছে, তারা আমাদের পবিত্র ইসলাম ধর্মকে অবমাননা করেছে। একই সঙ্গে হিন্দু ধর্মকেও অবমাননা করেছে। এই দেশে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্ট করেছে। তাদেরকে খুঁজে বের করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে সরকার বদ্ধপরিকর।