প্রতীকই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে গাজীপুর সিটি নির্বাচনে


নির্বাচনের বছর বলেই গাজীপুর সিটি নির্বাচনকে একটু বেশি গুরুত্ব দিচ্ছেন সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা।

প্রতীক-ই এ নির্বাচনে প্রধান নিয়ামক হিসেবে দেখা দিবে বলে মনে করেন তারা। পাশাপাশি গুরুত্ব পাবে প্রর্থীর ব্যক্তিগত যোগ্যতা-অযোগ্যতা আর রাজনৈতিক প্রজ্ঞা। আর এক্ষেত্রে একটু ভেবে চিন্তে ভোট দিতে ভোটারদের প্রতি আহ্বান তাদের।

তফসিলের পরপরই গাজীপুরে আলোচনায় এখন নির্বাচন। মেয়র পদে দশজন মনোনায়ন পত্র জমা দিলেও সবার দৃষ্টি আওয়ামী লীগের জাহাঙ্গির আলোম আর বিএনপির হাসান উদ্দিন সরকারের দিকে।

ভোট যুদ্ধে এই দু’জনকেই এগিয়ে রাখছের এখানকার সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা। তারা বলছেন যেহতু এ বছরই জাতীয় নির্বাচন তাই নৌকা-ধানের শীষের এই লড়াইয়ে প্রভাব থাকবে জাতীয় রাজনীতির।

টঙ্গী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক মো রফিকুল ইসলাম বলেন, প্রধান দুই দলের দুজনের ক্ষেত্রেই প্রতীক গুরুত্বপূর্ণ হতে পারে।

তবে স্থানীয় নির্বাচনে প্রার্থীর ব্যক্তি ইমেজকে ছোট করে দেখছেন না তারা।

তবে নগরের স্বার্থের কথা ভেবে ভোটের আগে একটু কৌশলী হতে ভোটারদের প্রতি আহ্বান তাদের।

সরকারি ভাষা শহীদ কলেজের প্রভাষক মুকুল কুমার মল্লিক বলেন, ইচ্ছা করেই কিছু প্রতীক দেয়া হচ্ছে। এই প্রতীকই ভূমিকা রাখবে।
১৫ ই মে গাজীপুর সিটি করপোরেশনে ভোট গ্রহণ।

নিউজ ডেস্ক, বিজয় টিভি