প্রথম ধাপে কিছু রোহিঙ্গা ফেরত নিতে রাজি মিয়ানমার: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

৮০

প্রথম ধাপে কিছু সংখ্যক রোহিঙ্গাকে দেশে ফেরত নিতে রাজি হয়েছে মিয়ানমার বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. আব্দুল মোমেন।

তিনি বলেন, এ বিষয়ে ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে আবারো বৈঠকে বসবে দুই দেশ।

রবিবার (৩১ জানুয়ারি) সকালে রাজধানীর মিরপুরে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে একথা জানান তিনি।

তিনি বলেন, মিয়ানমারের সঙ্গে সচিব পর্যায়ের বৈঠক হয়েছে। আমাদের পক্ষ থেকে বেশ কিছু প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে। সেখানে তারা বলেছে, তারা কিছু রোহিঙ্গা ফেরত নেবে। আমরা তাদের ইতোমধ্যেই ৮ লাখেরও বেশি একটা তালিকা দিয়েছি। তারা মাত্র ৪২ হাজার ভেরিফাই করেছে। আর আগামী ফেব্রুয়ারিতে বাংলাদেশ-মিয়ানমারের মধ্যে ডিজি লেভেলের বৈঠক হবে। সেখানে এ নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হবে। আমরা চাই প্রত্যাবাসন প্রক্রিয়া শুরু হোক।

প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালের আগস্টে মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নির্যাতন ও নিপীড়নের মুখে বাংলাদেশ পালিয়ে আসে প্রায় ৭ লক্ষাধিক রোহিঙ্গা। এছাড়া আরো আগে থেকে বাংলাদেশের আশ্রয়ে ছিলো ৪ লাখের বেশি রোহিঙ্গা। বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের নিজ দেশে ফিরিয়ে নিতে মিয়ানমার সরকার বাংলাদেশের সঙ্গে চুক্তি করলেও কোন ধরনের সমাধানে আসতে পারেনি দুই দেশ।