বঙ্গবন্ধুর সামগ্রিক জীবনটাই হচ্ছে বাংলাদেশের ইতিহাস : টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী

৭৯

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, বঙ্গবন্ধু ৪৭ সাল থেকেই বাংলাদেশ রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠার সংগ্রাম শুরু করেছিলেন । ১৯৪০ সালের লাহোর প্রস্তাব পাশ কাটিয়ে দুটি সাম্প্রদায়িক রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা বঙ্গবন্ধু মেনে নেননি। বঙ্গবন্ধু মতো একজন রাজনীতিক পৃথিবীর ইতিহাসে বিরল। তিনি সারা জীবন শোষিতের অধিকার প্রতিষ্ঠায় রাজনীতি করেছেন। বঙ্গবন্ধুর সামগ্রিক জীবনটাই হচ্ছে বাংলাদেশের ইতিহাস। এরকম একজন মানুষকে তুলনা করার জন্য পৃথিবীতে আর একজন রাজনীতিককে খুঁজে পাওয়া যাবেনা বলে মন্ত্রী উল্লেখ করেন।

মন্ত্রী গতকাল শনিবার রাতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ উদপযাপন উপলক্ষে নেত্রকোণা জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ওয়েবিনারে শতবর্ষে শত অনুষ্ঠানের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদ্যাপন জাতীয় কমিটির প্রধান সমন্বয়ক ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী অনুষ্ঠানের উদ্বোধন করেন।

অনুষ্ঠানে সমাজকল্যান প্রতিমন্ত্রী আশরাফ আলী খান খসরু, সংসদ সদস্য অসীম কুমার উকিল, জাকিয়া পারভিন মনি, বিশিষ্ট ব্যক্তিত্ব অধ্যাপক যতীন সরকার, ময়মনসিংহ বিভাগের বিভাগীয় কমিশনার কামরুল হাসান এবং শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য রফিক উল্লাহ খান বক্তৃতা করেন। নেত্রকোণা‘র ডিসি কাজী আবদুর রহমান অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন।

মন্ত্রী মুজিব জন্মশতবর্ষ উদযাপন উপলক্ষে একশত দিনের কর্মসূচি গ্রহণের জন্য জেলাপ্রশাসনের উদ্যোগের প্রশংসা করে বলেন, বঙ্গবন্ধুর জীবন ও আদর্শ নতুন প্রজন্মকে আদর্শ মানুষ হওয়ার জন্য অনুপ্রেরণা যোগাবে। তিনি বলেন, নেত্রকোণা ঐতিহ্যগতভাবেই বঙ্গবন্ধু প্রেমিকদের ঘাটি, সার্বিকভাবেই এই এলাকার মানুষ বঙ্গবন্ধুকে প্রাণের মতোই ভাল বাসেন। বঙ্গবন্ধু অনেকবার এ এলাকায় এসেছেন। ষাটের দশকের রাজপথের লড়াকু সৈনিক জনাব মোস্তাফা জব্বার বলেন, ৪৭ থেকে ৭১ পর্যন্ত জনগণকে সংগঠিত করে জনগণকে সাথে নিয়ে স্বাধীনতার লড়াই করেছেন তিনি।

নিউজ ডেস্ক/বিজয় টিভি

You might also like