রাজস্ব আয় বাড়াতে ব্যবস্থাপনার উন্নয়ন জরুরি : অর্থমন্ত্রী

৬১

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, দেশের মানুষের করভীতি আমরা দূর করতে পেরেছি। মানুষ এখন কর দিতে চায়। তবে রাজস্ব আয় বাড়ানোর জন্য রাজস্ব ব্যবস্থাপনায় ডিজিটাল কর পরিশোধ পদ্ধতি সংযোজনসহ সামগ্রিক কর ব্যবস্থাপনার উন্নয়ন ঘটাতে হবে।

বৃহস্পতিবার রাজধানীর সেগুনবাগিচায় রাজস্ব ভবন সভাকক্ষে সেরা করদাতা সম্মাননা ও ট্যাক্স কার্ড প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। অর্থমন্ত্রী ভার্চ্যুয়াল মাধ্যমে অনুষ্ঠানে যুক্ত হন।

জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে সাবেক যোগাযোগ মন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেন, এনবিআরের সদস্য (করনীতি) মো. আলমগীর হোসেন, বিট্রিশ আমেরিকান টোব্যাকোর সিইও শেহজাদ মুনির,গ্রামীণ ফোনের সিইও ইয়াসির আজমান, আকিজ গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শেখ বশিরউদ্দিন, ইউনিলিভারের সিইও কেদার লেলে প্রমুখ বক্তব্য রাখেন।

করযোগ্য সবাইকে করের আওতার আনার প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করে অর্থমন্ত্রী বলেন,কর প্রদানে উপযুক্ত যারা, তাদের সবাইকে আমরা করের আওতায় আনতে চাই। করহার যৌক্তিকভাবে হ্রাস করলে, আশা করি করনেট সম্প্রসারণ হবে। নতুন নতুন করদাতা করের আওতায় চলে আসবে।

কর-জিডিপি অনুপাতের দিক দিয়ে বাংলাদেশ পিছিয়ে আছে উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, আমাদের কর-জিডিপির অনুপাত অন্তত ১৬ থেকে ১৭ শতাংশে থাকা দরকার। কিন্তু ব্যবধানটা অনেক বেশি। রাজস্ব আয় বাড়লেও কর-জিডিপির অনুপাত এখনও ১০ শতাংশে রয়ে গেছে। এই ব্যবধান কমানোর জন্য আমাদের ডিজিটাল রাজস্ব ব্যবস্থাপনা গড়ে তুলতে হবে।

You might also like