রেলকে উন্নত বিশ্বের কাতারে নিতে চেষ্টা করছে সরকার : রেলমন্ত্রী

১৪৭

রেলপথ মন্ত্রী মো: নূরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রেলখাতের উন্নয়নে আন্তরিক হওয়ায় এখন নতুন নতুন প্রকল্প নেওয়া হচ্ছে এবং রেলকে আধুনিক ও উন্নত বিশ্বের কাতারে নিয়ে যাওয়ার চেস্টা করছে সরকার।

জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকীতে রেলসেবা ও নিরাপত্তা সপ্তাহ-২০২০ পালনের অংশ হিসেবে মন্ত্রী আজ (০৬ ডিসেম্বর) কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন পরিদর্শন ও যাত্রীদের সাথে শুভেচ্ছা বিনিময়কালে একথা বলেন।

‘একতা’ ট্রেনের যাত্রীদের শুভেচ্ছা বিনিময়শেষে উপস্থিত সাংবাদিকদের কাছে রেলওয়ের গৃহীত কার্যক্রম তুলে ধরে মন্ত্রী বলেন, ৪ ডিসেম্বর হতে ১০ ডিসেম্বর পর্যন্ত সপ্তাহব্যাপী ‘জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকীতে রেলসেবা ও নিরাপত্তা সপ্তাহ-২০২০’ উদযাপন করছে বাংলাদেশ রেলওয়ে। যাত্রীসেবা বৃদ্ধি করাই রেলসেবা সপ্তাহ পালনের মূল লক্ষ্য। সেবা ও নিরাপত্তা সপ্তাহ পালন উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ রেলওয়ের পূর্বাঞ্চলে ৭টি এবং পশ্চিমাঞ্চলে ১১টি টাস্কফোর্স গঠন করা হয়েছে। নির্ধারিত স্টেশন ঢাকা, চট্টগ্রাম, ময়মনসিংহ, সিলেট, রাজশাহী, খুলনা, সান্তাহার, ঈশ্বরদী, পার্বতীপুর ও লালমনিরহাট থেকে সংশ্লিষ্ট সেকশনের দায়িত্বপ্রাপ্ত টাস্কফোর্সের কার্যক্রম পরিচালনা করছে বলে মন্ত্রী উল্লেখ করেন।

মন্ত্রী বলেন, রেলওয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা কোভিডকালীন স্বাস্থ্যসুরক্ষার মাধ্যমে নিরাপদ ট্রেন চলাচল নিশ্চিতকরার পাশাপাশি  রেলওয়ের হাসপাতালসংলগ্ন গুরুত্বপূর্ণ স্টেশনগুলোতে প্রাথমিক চিকিৎসা সেবা প্রদান করেছে। রেলওয়ে স্টেশন ও স্টেশন অংগন পরিস্কার পরিচ্ছন্ন রাখা, ট্রেনসমূহের সময়ানুবর্তিতা নিশ্চিত করা, যাত্রীদের নিরাপত্তা সম্পর্কিত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করাসহ নিয়মিত  কার্যক্রম অব্যাহত রাখছে বাংলাদেশ  রেলওয়ে।

সিডিউল বিপর্যয় বিষয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, ডাবল লাইন না হওয়া পর্যন্ত সিডিউল বিপর্যয় রক্ষা করা সম্ভব নয়। ইতোমধ্যে সরকার ডাবল লাইন নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছে।

বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক মো: শাসসুজ্জামানসহ বিভাগীয় রেলওয়ের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা পরিদর্শনের সময় উপস্থিত ছিলেন।

নিউজ ডেস্ক/বিজয় টিভি

You might also like