সারাদেশে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন

৩৩

রাজধানী ঢাকাসহ সারা দেশে যথাযোগ্য মর্যাদায় ও নানা কর্মসূচির মধ্যদিয়ে পালিত হয়েছে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস। স্বাধীনতার ৫০তম বার্ষিকীতে পুরো জাতি শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় স্মরণ করে মুক্তিযুদ্ধে আত্মদানকারী বীর শহীদদের। ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক ও সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে দিবসটি উদযাপন করেছে।

দিবসটি উপলক্ষে মেহেরপুর শহরের কলেজ মোড়ে অবস্থিত স্মৃতিসৌধে জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন জেলা প্রশাসক ডঃ মনছুর আলম খান।

সূর্যোদয়ের সাথে সাথে শেরপুর মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিস্তম্ভে পূষ্পস্তবক অর্পণ করে দিনের কর্মসূচির সূচনা করেন জাতীয় সংসদের হুইপ আতিউর রহমান আতিক, জেলা প্রশাসক আনার কলি মাহবুব ও পুলিশ সুপার নাহিদ হাসান চৌধুরী।

নওগাঁয় শহরের মুক্তির মোড়ে শহীদ মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতিস্তম্ভে বিভিন্ন রাজনৈতিক দল, সরকারি-বেসরকারি প্রতিষ্ঠান, সামাজিক, সাংস্কৃতিক সংগঠন শহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।

এদিকে, কুমিল্লার বরুড়ায় স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষে সকালে বর্ণাঢ্য র‌্যালি বের করা হয়। র‌্যালিটি বরুড়া বাজারের বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে উপজেলার কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে গিয়ে পুষ্পস্তবক অর্পণের মধ্য দিয়ে শেষ হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ.এন.এম মইনুল ইসলাম ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমানসহ অন্যান্যরা।

জামালপুরে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে জিলা স্কুল মাঠে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত আকারে কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানের আয়োজন করেন জেলা প্রশাসক মোর্শেদা জামান। এসময় উপস্থিত ছিলেন পুলিশ সুপার নাসির উদ্দিন আহমেদ।

এছাড়া, টাঙ্গাইল, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, ময়মনসিংহ, হালুয়াঘাট, পটুয়াখালী, গলাচিপা, নরসিংদী, রায়পুরা, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, সরিষাবাড়ি, ঝিনাইদহ, জয়পুরহাট, কিশোরগঞ্জের কুলিয়ারচর, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, ঠাকুরগাঁও, নীলফামারী, গাজীপুর, কালিয়াকৈর, টাঙ্গাইলের মির্জাপুর ও কুষ্টিয়ার খোকসায় উদযাপন করা হয়েছে স্বাধীনতার ৫০ বছর।

You might also like