আলোচিত সেই তেঁতুলতলা মাঠে ঈদের নামাজ আদায়

করোনাভাইরাস মহামারির প্রাদুর্ভাব কাটিয়ে দুই বছর পর ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হলো রাজধানীর কলাবাগানের তেঁতুলতলা মাঠে। ঈদের দিন সকাল ৮টায় এ মাঠে ঈদের নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। লাকার বাসিন্দারা স্বতঃস্ফূর্তভাবে ঈদের জামাতে অংশ নেন।

আজ মঙ্গলবার (৩রা মে) সরেজমিনে তেঁতুলতলা মাঠে গিয়ে দেখা গেছে, মাঠে মুসল্লিদের উপচেপড়া ভিড়। প্রত্যেকের হাতে জায়নামাজ। বৃষ্টির আশঙ্কায় কেউ কেউ ছাতা হাতেও এসেছেন।

সরেজমিনে দেখা যায়, ঈদের জামাতকে কেন্দ্র করে মাঠে টানানো হয় সামিয়ানা। বাঁশ দিয়ে নির্মাণ করা হয় অবকাঠামো। সকাল থেকেই আসতে থাকেন ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা। তাদের সঙ্গে আসে শিশুরাও।

মুসল্লিরা জানান, মাঠটি দখল মুক্ত হওয়ায় এলাকার সবাই খুশি। খুশিতে এবার রেকর্ডসংখ্যক মুসল্লিরা ঈদের জামাতে অংশগ্রহণ করেছেন এ মাঠে। এর আগে এই মাঠে এত মানুষ একসঙ্গে ঈদের জামাত আদায় করেননি।

রাজধানীর কলাবাগান এলাকার তেঁতুলতলা মাঠে পুলিশের জন্য থানা ভবন নির্মাণের কথা ছিল। তবে মাঠটি রক্ষার দাবিতে অনেক দিন ধরে আন্দোলন করে আসছিলেন স্থানীয়রা। এর মধ্যে গত ২৪শে এপ্রিল মাঠটি রক্ষার দাবিতে আন্দোলনকারী সৈয়দা রত্না ফেসবুক লাইভ করার সময় কলাবাগান থানা পুলিশ তাকে ধরে নিয়ে যায়।

এরপর তার ছেলেকেও আটক করা হয়। ১৩ ঘণ্টা থানায় আটকে রাখার পর ওইদিন মধ্যরাতে মুচলেকা নিয়ে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়।

২৮শে এপ্রিল সচিবালয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল জানান, কলাবাগানের তেঁতুলতলা মাঠে আর কোনো ভবন হবে না। মাঠ যেভাবে ছিল সেভাবেই থাকবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এ পরামর্শ দিয়েছেন।

You might also like
%d bloggers like this: