ইরাক ও সিরিয়ায় ইরান-সমর্থিত গ্রুপের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের হামলায় নিহত ১৯

৭৬

ইরাকে ইরান-সমর্থিত জঙ্গি দলের বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের হামলায় ১৯ যোদ্ধা নিহত হয়েছে। রকেট হামলায় সেখানে এক আমেরিকান বেসামরিক ঠিকাদার নিহত হওয়ার দুদিন পর এ ঘটনা ঘটলো। খবর এএফপি’র।

পেন্টাগন রোববার জানিয়েছে, ইরাকের পশ্চিমাঞ্চলে এবং সিরিয়ার পূর্বাঞ্চলে কাতাইব হিজবুল্লাহ (কেএইচ) সংশ্লিষ্ট গ্রুপের অস্ত্র ভান্ডার এবং অন্যান্য কমান্ড ও নিয়ন্ত্রন স্থাপনা লক্ষ্য করে রোববার এই হামলা চালানো হয়। শুক্রবার ৩০ টির বেশি রকেট হামলার জবাবে যুক্তরাষ্ট্র এ হামলা চালিয়েছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও বলেন, ‘আমরা আমেরিকান নারী ও পুরুষের জন্য বিপদ বয়ে এমন কাজে ইসলামি প্রজাতন্ত্র ইরানের পাশে দাঁড়াবো না।’

বাগদাদের উত্তরে তেল-সমৃদ্ধ এলাকা কিরকুকে কে ১ সামরিক ঘাঁটিতে শুক্রবারের হামলায় চার মার্কিন সেনা সদস্য ও ইরাকী নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা আহত হয়েছে।

মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী মার্ক এস্পার রোববার বলেছেন, বিমান হামলাসমূহ সফল হয়েছে এবং ইরান বা জঙ্গি গ্রুপগুলোর এ ধরণের আচরণের প্রেক্ষিতে তিনি আরো পরবর্তী পদক্ষেপের সম্ভাবনা নাকচ করে দেননি।’

এস্পার আরো বলেন, তিনি ও পম্পেও ফ্লোরিডা যাচ্ছেন। সেখানে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বড়দিনের অবকাশ কাটাচ্ছেন। তারা সেখানে তাঁকে মধ্যপ্রাচ্যের সর্বশেষ পরিস্থিতি সম্পর্কে অবগত করবেন।

পেন্টাগণ এর আগে ইরানের রেভ্যুলুশনারি গার্ডের সঙ্গে সংশ্লিষ্টতার উল্লেখ করে জানিয়েছে, ইরানের কুদস বাহিনীর সঙ্গে কাতাইব হিজবুল্লাহ’র ঘনিষ্ট সম্পর্ক রয়েছে এবং ইরাণের কাছ থেকে তারা প্রাণঘাতি অস্ত্র ও অন্যান্য সহায়তা গ্রহন করে আসছে।’
তেহরান সমর্থিত হাশেদ আল-শাবি আধাসামরিক বাহিনীর এক সদস্য জানিয়েছে, ইরাকের পশ্চিমাঞ্চলে যুক্তরাষ্ট্রের বিমান হামলায় ১৯ যোদ্ধা নিহত হয়েছে এবং বেশ কিছু সংখ্যক আহত হয়েছে। সুত্র: বাসস

অনলাইন নিউজ ডেস্ক/বিজয় টিভি

You might also like