করোনা নিয়ন্ত্রণে বাংলাদেশের অভিজ্ঞতা বিশ্ব জানতে চায়: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, দেশে করোনা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে থাকায় আমাদের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল হয়েছে। ঘনবসতিপূর্ণ একটি দেশ সীমিত সম্পদেও করোনায় এত ভালো করেছে। বিশ্বব্যাংক আমাদের কাছ থেকে একটি লিখিত চেয়েছে, বাংলাদেশের অভিজ্ঞতা জানতে চায় সবাই। এখানে শিক্ষার বিষয় আছে। আমাদের অভিজ্ঞতা তারা চেয়েছে লিখিত, সেটি বিশ্বের অন্যান্য দেশে তারা ছড়িয়ে দেবে।

বুধবার (১৮ মে) রাজধানীর খামারবাড়ি কৃষিবিদ ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে বাংলাদেশ চক্ষু চিকিৎসক সমিতি আয়োজিত ৪৯তম বার্ষিক জাতীয় সম্মেলনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, বিশ্বব্যাংকের সঙ্গে আমরা তিন ঘণ্টা মিটিং করেছি। আমাদের কাছ থেকে সব জানার চেষ্টা করেছে কীভাবে করোনা নিয়ন্ত্রণ হলো। যেখানে সবচেয়ে ধনী দেশ যুক্তরাষ্ট্র তেমন নিয়ন্ত্রণ করতে পারেনি এখনও। তারা বললেন- যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে তুলনা করলে হয়তো কোনও দিক দিয়ে বাংলাদেশ এগিয়ে থাকবে না। তবে করোনা নিয়ন্ত্রণে, ভ্যাকসিনে যুক্তরাষ্ট্র থেকে এগিয়ে বাংলাদেশ।

জাহিদ মালেক বলেন, আজকে আমরা অনেকেই মাস্ক পরি না। মনের মধ্যে সাহস আসছে, জোর আসছে। গত এক মাসে একজনও করোনায় মারা যায়নি। এটা একটা বিরল অর্জন। পৃথিবীর খুব কম দেশেই আছে এমন। সে কারণেই বাংলাদেশের জিডিপি আজকে ছয় শতাংশ। পৃথিবীর কোন দেশেরই তা নেই।

তিনি বলেন, করোনায় ভালো আছি বলেই বাংলাদেশের মানুষরা বিদেশে যেতে পারছে কোনও বাধা ছাড়াই। কোথাও করোনার সার্টিফিকেট দেখাতে হয় না।

এ সময় মন্ত্রী জানান, এখন পর্যন্ত ২৯ কোটি টিকা বাংলাদেশ পেয়েছে। এরমধ্যে ২৬ কোটি টিকা দেওয়া হয়েছে।

অনুষ্ঠানে ওএসবির সহ-সভাপতি অধ্যাপক আশরাফ সাঈদ সভাপতিত্ব করেন। এতে আরও উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য ও শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সাইফুল হাসান বাদল, বিএসএমএমইউর উপাচার্য অধ্যাপক ডা. শারফুদ্দিন আহমেদ, স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. এএইচএম এনায়েত হোসেন প্রমুখ।

You might also like