কারাগারে বিএনপির নেতা ‍আমরি খসরু

২১ অক্টোবর পর্যন্ত জামিনে থাকা বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরীকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত।

রবিবার (২১ অক্টোবর) মহানগর দায়রা জজ আকবর হোসেন মৃধার আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করলে আদালত আবেদন নাখোজ করে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

অ্যাডভোকেট ফখরুদ্দীন চৌধুরী জানান, নিরাপদ সড়কের দাবিতে শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের সময় ফোন কলরে মাধ্যমে শর্ক্ষিাথীদরে উসকানির অভিযোগে তথ্যপ্রযুক্তি আইনের ৫৭(২) ধারা ও বিশেষ ক্ষমতা আইনের ১৫/৩ ধারার মামলায় কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত। মামলটি দায়রে করনে নগর ছাত্রলীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক জাকারিয়া দস্তগী।

এদিকে সাবেক মন্ত্রী ও বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরীকে মিথ্যা মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে কারাগারে পাঠানোর ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

তিনি বলেন, ‘নব্য বাকশালী শাসনের অন্তরায় মনে করেই আমীর খসরুকে গ্রেফতার করা হয়েছে। আসন্ন নির্বাচনকে ভোটারশূন্য করার জন্য সরকার নানা ফন্দি এঁটে চলছে। ভোটারবিহীন একতরফা নির্বাচন করার জন্যই বর্তমান গণবিচ্ছিন্ন শাসকগোষ্ঠী জনমতকে তোয়াক্কা করছে না। আওয়ামী সরকার জনগণকেই সবচেয়ে বড় শত্রু মনে করে। অনাচারের ওপর নির্ভর করেই সরকার টিকে থাকতে চাচ্ছে, কিন্তু তাতে সরকারের শেষরক্ষা হবে না। মানুষের পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে। সরকারের সব অপকর্মের জবাব দিতেই জনগণ পথে-পথে ব্যারিকেড তৈরি করবে।

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আমি অবিলম্বে বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরীর বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে তার নিঃর্শত মুক্তির দাবি জানাচ্ছি।’

নিউজ ডেস্ক / বিজয় টিভি

You might also like