ডিজিটাল পরিষেবা কর বসানো নিয়ে ক্ষোভ আমেরিকার

ওয়াশিংটন: মার্কিন পণ্যের উপর ভারত-চিন সহ বেশ কিছু দেশে অনৈতিকভবে শুল্ক বসানো হচ্ছে বলে ক্ষোভ ছিল ট্রাম্প প্রশাসনের। ইতিমধ্যেই এইসব শুল্ক বসানো নিয়ে মার্কিন চিন বিবাদে তোলপাড় হচ্ছে গোটা দুনিয়া। এবার একই রকম অভিযোগ আনা হয়েছে ডিজিটাল পরিষেবা কর বসানোর ক্ষেত্রে।এ নিয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করে এবার তদন্তে নামতে চাইছে আমেরিকা।

ট্রাম্প প্রশাসনের অভিমত, অন্যায় ভাবে মার্কিন প্রযুক্তি সংস্থার কাছ থেকে পরিষেবা উপর কর নিচ্ছে ভারতসহ বেশ কিছু দেশ। ওইসব দেশের এইসব কার্যকলাপের উপর তদন্ত করতে উদ্যোগী হয়েছে আমেরিকা। ভারত ছাড়াও যেসব দেশগুলি উপর সন্দেহ প্রকাশ করে তদন্তের কথা বলা হয়েছে সেগুলির মধ্যে রয়েছে-ব্রিটেন, ইউরোপীয় ইউনিয়ন, তুরস্ক ইন্দোনেশিয়া অস্ট্রেলিয়া ব্রাজিল প্রভৃতি।

ডিজিটাল পরিষেবা কর হল, বাইরের দেশের কোনও সংস্থা এদেশে পণ্য পরিষেবা বিক্রি করলেও সেই বিলের উপর কর দিতে হয়। গত পয়লা এপ্রিল থেকে এজন্যে ভারত ২ শতাংশ হারে কর নিচ্ছে, যদি সংশ্লিষ্ট সংস্থার‌ বার্ষিক লেনদেন দু কোটি টাকার বেশি হয়। তাছাড়া ভারতীয় ক্রেতাদের আকৃষ্ট করতে দেওয়া বিজ্ঞাপনের উপর কর বসেছে। এমনটা শুধু ভারত নয় অন্যান্য বেশ কিছু দেশ এই ডিজিটাল পরিষেবা কর চালু করে দিয়েছে। আর এই কর সবচেয়ে বেশি তাদের দেশের সংস্থাগুলি উপর চেপেছে বলে অভিযোগ আমেরিকার।

মার্কিন বাণিজ্য প্রতিনিধি রবাট লাইটহাইজারের বক্তব্য, ট্রাম্প প্রশাসন উদ্বিগ্ন বাণিজ্য সহযোগী দেশগুলির মার্কিন সংস্থাগুলির উপর একতরফাভাবে করের বোঝা চাপানোয়। এজন্য ভবিষ্যতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপের জন্য এবার ওইসব কর সংক্রান্ত তদন্ত করার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। অন্যদিকে মার্কিন চেম্বার অফ কমার্সের এক কর্তা জানিয়েছেন, বর্তমানে ডিজিটাল মাধ্যমে বাণিজ্য করাটা আর্থিক সমৃদ্ধির লক্ষণ। ফলে এই পরিস্থিতিতে আলোচনার মাধ্যমে এই সমস্যার সমাধানের পথ খুঁজে নেওয়া দরকার।

সূত্র: কোলকাতা ২৪

You might also like