ঢাকার গণপরিবহনে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনা হবে: মেয়র তাপস

ঢাকার গণপরিবহনে শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনা হবে বলে জানিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস।

রোববার দুপুরে নগর ভবনে বাস রুট রেশনালাইজেশন কমিটির ১৯তম সভা শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।

মেয়র তাপস বলেন, আমরা বাস মালিকদের বলেছিলাম ২০১৯ এর পর বাসের মেয়াদ, ফিটনেস এবং কাগজপত্র ঠিক রয়েছে এমন ১২০টি বাসের কাগজপত্র জমা দিতে। তারা তখন বলেছিলেন তা জমা দেবেন, কিন্তু বাস মালিকরা তাদের প্রতিশ্রুতি রাখতে পারেননি। তাই আমরা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটিএ) সঙ্গে কথা বলে অন্য ব্যবস্থা গ্রহণ করছি।

তিনি বলেন, কেরানীগঞ্জের ঘাটারচর থেকে কাঁচপুরের নতুন রুটে বিআরটিসি বাস ছাড়াও অন্য পরিবহনের গাড়ির ২০১৯ এর পর সব কাগজপত্র, ফিটনেস ঠিক থাকলে আগামী ১২ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাস মালিকরা আবেদন করতে পারবেন। আমরা সে সুযোগ রাখছি। কাগজপত্র ঠিক থাকলে আমরা সেগুলো বিবেচনা করবো। এছাড়া নগরের বিভিন্ন নতুন রুটে বিআরটিসির বাস চলাচল করবে।

মেয়র তাপস বলেন, নিদিষ্ট রুট ছাড়া এক রুটের বাস অন্য রুটে চলতে পারবে না এবং রুট পারমিট ছাড়া নগরে কোনো বাস চলতে পারবে না। এছাড়া আগামী ১ ডিসেম্বরের পরিবর্তে ২৬ ডিসেম্বর চালু হবে ‘ঢাকা নগর পরিবহন’ নামে বাস রুট।

এর আগে গত ৫ অক্টোবর ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) প্রধান কার্যালয় নগর ভবনে রুট রেশনালাইজেশন কমিটির ১৮তম সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভা শেষে ঘোষণা দেওয়া হয়েছিল আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে শুরু হবে ‘ঢাকা নগর পরিবহন’ নামের বাস রুট রেশনালাইজেশনের প্রথম ধাপ। কেরানীগঞ্জের ঘাটারচর থেকে কাঁচপুর পর্যন্ত চলবে এ পরিবহন। প্রায় ২১ কিলোমিটারের এ রুটে কিলোমিটার প্রতি ভাড়া পড়বে দুই টাকা ২০ পয়সা। কিন্তু ১৯তম সভা শেষে কমিটি ১ ডিসেম্বরের পরিবর্তে আগামী ২৬ ডিসেম্বর থেকে এ রুটে বাস রুট রেশনালাইজেশনের প্রাথমিক কাজ করবে।

You might also like