তামিম মিথ্যা বলেছে: পাপন

তামিম ইকবালের টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ারের ভবিষ্যত নিয়ে আলোচনা ও জটিলতার কোন শেষ নেই। টি-টোয়েন্টি ফরম্যাট থেকে আপাতত ছয় মাসের বিশ্রামে রয়েছেন তামিম। তাই তাকে ছাড়াই বিশ ওভারের দল সাজাচ্ছে বাংলাদেশ।

কিন্তু প্রশ্ন হলো, বিশ্রামের ছয় মাস শেষ হওয়ার পর কী করবেন ওয়ানডে দলের অধিনায়ক? এই বিশ্রাম পর্ব শেষ হওয়ার পরপরই শুরু হয়ে যাবে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। বিশ্রাম থেকে ফিরেই কি তিনি বিশ্বকাপ দলে ঢুকে যাবেন? নাকি অন্য কোন ভাবনা আছে তার?

তবে এর কোন সদুত্তর মেলেনি কারও কাছ থেকে। বিসিবির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, তামিম নিজেই জানাবেন নিজের ভবিষ্যত সম্পর্কে। আর সবশেষ তামিম জানিয়েছেন, টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ার নিয়ে কারও সঙ্গে কোনো কথাই হয়নি তার! এ বিষয়ে ক্ষোভও প্রকাশ করেছেন তামিম।

গেল রোববার সংবাদ মাধ্যমে তামিম জানিয়েছিলেন, ‘টি-টোয়েন্টি নিয়ে তার যে পরিকল্পনা, সেটি তাকে বলার সুযোগই দেওয়া হয় না। তিনি বলেন, ‘আমার মনে হয় এতটুক আমি ডিজার্ভ করি যে আমি কি চিন্তা করি না চিন্তা করি এটা আমার মুখ থেকে শোনা।’

এদিকে তামিমের এ বক্তব্যকে মিথ্যা বলছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। তিনি বলেন, আমি ওকে অন্তত চারবার বাসায় ডেকেছি এবং টি-টোয়েন্টি খেলতে অনুরোধ করেছি। বোর্ডের অন্যরাও এ বিষয়ে ওর সঙ্গে কথা বলেছে।

তিনি আরও যোগ করেন, ‘অনেকবার অনুরোধের পরও তামিম বোর্ডকে লিখিত দিয়েছে যে, সে এখন টি-টোয়েন্টি খেলতে চায় না।

আপাতত তামিমের টি-টোয়েন্টি ক্যারিয়ার নিয়ে ধোঁয়াশা তৈরি হলেও, তাকে যেকোনো সময় এই ফরম্যাটে স্বাগত জানাতে প্রস্তুত বাংরাদেশ ক্রিকেট বোর্ড, এমনটাই জানিয়েছেন বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।