নাব্য সংকটে শিমুলিয়া-কাঠালবাড়ি নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ

৯৭

নাব্য সংকটে শিমুলিয়া-কাঠালবাড়ি নৌরুটে আজ সন্ধ্যা থেকে সকল ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। এর আগে গত কয়েকদিন ধরেই এরুটে ফেরি চলাচল মারাত্মকভাবে ব্যহত হচ্ছিল। ফেরি বন্ধ হওয়ায় উভয় পাড়ে যানবাহনের দীর্ঘ যানজট সৃষ্টি হয়েছে। যাত্রী ও পরিবহন শ্রমিকরা চরম ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন। বিআইডব্লিউটিসি যাত্রীদের বিকল্প রুট ব্যাবহারের পরামর্শ দিয়েছেন।

বিআইডব্লিউটিসি’র কাঁঠালবাড়ী ঘাট সূত্র জানায়, পদ্মায় তীব্র স্রোতের সাথে প্রচুর পরিমানে পলি এসে বিকল্প চ্যানেল মুখে জমা হয়ে নাব্যতা সংকট প্রকট আকার ধারন করেছে। লৌহজং টার্নিংসহ কয়েকটি পয়েন্টে পানির গভীরতা এতই কমে গেছে যে ফেরিগুলো সেখানে আটকে যাচ্ছে।

তাই শনিবার সন্ধ্যা থেকে এ রুটের সকল ফেরি বন্ধ করে দেয় কর্তৃপক্ষ। গত কয়েকদিন আগে নাব্য সংকটের কারনে চ্যানেল অতিক্রম করতে না পারায় তিনটি রোরো ফেরি ও ২টি ডাম্প ফেরি বন্ধ ছিল। এরপরেই অপর একটি ফেরির তলদেশ ডুবোচরে ধাক্কা লাগলে ফেরিটি নিয়ন্ত্রনে আনতে গিয়ে তলা ফেটে যায়।

নাব্য সংকট নিরসনে নদীতে ৭ টি ড্রেজার দিয়ে খনন কার্যক্রম চললেও তীব্র স্রোতে খনন কাজ ব্যহত হচ্ছে। ফেরি বন্ধ থাকায় উভয় ঘাটে ৬ শতাধিক যানবাহন আটকে যাত্রী ও পরিবহন শ্রমিকরা চরম ভোগান্তি পোহাচ্ছেন।

এদিকে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় দক্ষিনাঞ্চল থেকে ঢাকাগামী যাত্রীবাহী ও পন্যবাহী যানবাহনগুলোকে পাটুরিয়া ঘাট দিয়ে পার হবার পরামর্শ দিচ্ছেন বিআইডব্লিউটিসি।

বিআইডব্ল্উিটিসি’র কাঁঠালবাড়ী ঘাট ম্যানেজার আঃ সালাম বলেন,’নাব্যতা সংকটের কারনে গত কয়েকদিন ধরেই ফেরি চলাচল ব্যহত হচ্ছিল। কাঠালবাড়ি থেকে ফেরিগুলো কোনমতে পার হতে পারলেও শিমুলীয়া থেকে বিকল্প চ্যানেল প্রবেশমুখে পানির স্তর অনেক নিচে নেমে যাওয়ায় ফেরিগুলো ডুবচরে আটকে যাচ্ছে। ঢাকাগামী যাত্রীদের  পাটুরিয়া রুট ব্যবহার করার জন্য অনুরোধ করা হচ্ছে।

 

নিউজ ডেস্ক / বিজয় টিভি

You might also like