পিএসজি থেকে নেইমারকে তাড়িয়ে দিচ্ছেন এমবাপ্পে!

২০১৭ সালে সব রেকর্ড ভেঙে নেইমারকে দলে ভিড়িয়েছিল পিএসজি। তবে যে কারণে তাকে দলে আনা, সেই চ্যাম্পিয়ন্স লিগের দেখা মেলেনি আর। তাই নেইমারের ওপর ক্ষুব্ধ পিএসজি তাকে তাড়িয়েই দিতে চায়, এমন খবর অনেক দিন ধরেই ঘুরে বেড়াচ্ছে ইউরোপীয় সংবাদ মাধ্যমগুলোতে।

এবার শোনা যাচ্ছে, চলতি দলবদলেই তাকে দলছাড়া করছে পিএসজি। আর তাতে হাত আছে তারই সতীর্থ কিলিয়ান এমবাপ্পের।

মরিসিও পচেত্তিনোর অধীনে লিগ আঁ’র শিরোপা পুনরুদ্ধার করেছে পিএসজি। তবু পিএসজির মৌসুমটাকে ব্যর্থই ধরা হচ্ছে, কারণ চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিততে পারেনি তারা। বরং বিদায় নিয়েছে শেষ ষোল থেকে, রিয়াল মাদ্রিদের কাছে হেরে।

সেই হার মেনে নিতে পারেননি সমর্থকরা, ফলে পিএসজির ম্যাচে দুয়ো শুনতে হয়েছিল নেইমারকে; রেহাই পাননি মেসিও। এরপরও পিএসজি নেইমারকে ধরে রাখত, যদি না মাঠের বাইরে ব্রাজিলিয়ান তারকার ব্যবহার ভালো হতো। কিন্তু পিএসজি ফরোয়ার্ড মাঠের চেয়ে মাঠের বাইরের আচরণ দিয়ে বেশি আলোচনায় এসেছেন শেষ কিছু দিনে।

তবে ফরাসি ফরোয়ার্ড এমবাপ্পে পিএসজি ছাড়লে হয়তো নেইমারকে রেখে দিত দলটি। তবে তা হয়নি বলেই নেইমারকে এখন তাড়িয়ে দিতে চায় পিএসজি, সেটাও চলতি দলবদলেই।

এছাড়াও ইউরোপীয় সংবাদ মাধ্যম জানিয়েছে, এমবাপ্পের সঙ্গে নেইমারের সম্পর্কটা অনেক দিন ধরেই ঠিক যেন উষ্ণ নয়। নতুন চুক্তিতে এমবাপ্পেকে পিএসজি বিশাল অঙ্কের বেতন বোনাস তো দিয়েছেই, সেই সাথে দলবদলে দলের ক্রীড়া প্রকল্পে হস্তক্ষেপের সুযোগও দিয়েছে।

সে অধিকার ব্যবহার করেই ব্রাজিলিয়ান এই ফরোয়ার্ডকে দলছাড়া করতে চান এমবাপ্পে এমন গুঞ্জন রয়েছে।

তবে নেইমারের পিএসজি ছাড়ার পথে বড় বাধা হচ্ছে তার বেতন। বর্তমান চুক্তিতে তিনি প্রতি বছর আয় করেন ৪৬৩ কোটি টাকা। এত বড় বেতন দিয়ে কে তাকে দলে নেবে সে নিয়ে আছে প্রশ্ন। তবে অনিচ্ছাসত্বেও যখন দল ছাড়বেন, তখন বেতন কমাতে চাইবেন কি না নেইমার, এ নিয়েও থেকে যাচ্ছে প্রশ্ন।