বগুড়ায় বেসরকারি হাসপাতালে ভুল চিকিৎসায় স্কুলছাত্রের মৃত্যুর অভিযোগ

৩৮৬

বগুড়া শহরের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ভুল চিকিৎসায় তৃতীয় শ্রেণির এক ছাত্রের মৃত্যুর অভিযোগ করেছেন স্বজনরা।

বৃহস্পতিবার রাত ১০টায় শহরের ঠনঠনিয়া এলাকায় ডক্টরস (ইউনিট ২) ক্লিনিকে তাওহিদ হাসান নামের ওই শিশুর টনসিলে অস্ত্রোপচার করার তিন ঘন্টা পর তাকে মৃত ঘোষণা করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। ভুল চিকিৎসায় শিশুটির মৃত্যু হয়েছে এমন অভিযোগে স্বজনদের বিক্ষোভের মুখে রাতে পুলিশ ক্লিনিকটির চিকিৎসক ডাক্তার সাইদুজ্জামানকে আটক করেছে।

বগুড়ার শাজাহানপুর উপজেলার মাঝিড়া এলাকার বাসিন্দা ফিরোজুল ইসলাম জানান, টনসিলে প্রদাহের কারণে তার ছেলেকে বৃহস্পতিবার সকালে ওই হাসপাতালে ভর্তি করানো হয় নাক, কান ও গলা বিশেষজ্ঞ ডাক্তার সাইদুজ্জামানের তত্ত্বাবধানে। সন্ধ্যা ৭টার দিকে শিশুটির অস্ত্রোপচার করেন চিকিৎসক। অপারেশন শেষে দুই ঘণ্টা পেরিয়ে গেলেও শিশুটির জ্ঞান না ফেরায় উদ্বিগ্ন হয়ে পড়েন স্বজনরা।

পরে রাত ১১টার দিকে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ শিশু তাওহীদকে মৃত ঘোষণা করলে বিক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেন স্বজনরা। পরে রাত ১২টার দিকে পুলিশ ওই ক্লিনিক থেকে অভিযুক্ত চিকিৎসক ডাক্তার সাইদুজ্জামানকে আটক করে। সদর থানার অফিসার ইনচার্জ এসএম বদিউজ্জামান জানান, শিশুটির পরিবারের অভিযোগের প্রেক্ষিতে ডাক্তার সাইদুজ্জামানকে আটক করে থানায় নেয়া হয়েছে। তাওহীদের স্বজনরা লিখিত অভিযোগ করলে পরবর্তী আইনী পদক্ষেপ নেয়া হবে।

 

নিউজ ডেস্ক /  বিজয় টিভি

You might also like