বিয়ের ৪ দিন পরই নবদম্পতির মরদেহ উদ্ধার

পরিবারের অমতে বিয়ে করার মাত্র চারদিনের মাথায় নবদম্পতির মরদেহ উদ্ধার হয়েছে। তবে স্বজনদের দাবি আত্মহত্যা করেছেন তারা।

ঘটনাটি ঘটে সোমবার (২৮ মার্চ) সকালে ভারতের মুর্শিদাবাদের খড়গ্রাম থানার বড়ার গ্রামে।

পুলিশ বলছে, রাজেশ ঘোষের সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গের বোলপুরের কিশোরীর প্রেমের সম্পর্ক হয়। তবে প্রথম থেকেই তাদের সম্পর্কে আপত্তি ছিল দুই পরিবারের। সম্প্রতি তারা পরিবারের অমতে বাড়ি থেকে বেরিয়ে বিয়ে করে। এরপর পুলিশের কাছে অভিযোগ করে কিশোরীর পরিবার।

এদিকে ওই নবদম্পতি বিয়ের পর বড়ার গ্রামের বাসিন্দা সিদ্ধিনাথ ঘোষের বাড়িতে আশ্রয় নেয়। সিদ্ধিনাথ ঘোষ আবার ওই যুবকের আত্মীয়।

তিনি বলেন, রোববার পর্যন্ত সব ঠিকঠাক ছিল। কিন্তু পরেরদিন দেখা যায় তারা গলায় ওড়না লাগিয়ে ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

রাজেশের পরিবারের দাবি, সম্পর্কের শুরু থেকেই রাজেশকে হুমকি দেওয়া হতো। এমনকি বিয়ের পরও মানসিক চাপ দেওয়া হয়েছিল। সে কারণেই তারা আত্মহত্যা করেন।

এদিকে পুলিশ মরদেহ দুটি উদ্ধার করে পশ্চিমবঙ্গের কান্দি মহকুমা হাসপাতালে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠিয়েছে। এ ঘটনায় মামলা হয়েছে অস্বাভাবিক মৃত্যুর।

%d bloggers like this: