যান্ত্রিক ত্রুটি নয়, চীনা বিমান দুর্ঘটনায় মিলল নতুন তথ্য

যান্ত্রিক ত্রুটি নয়, চায়না ইস্টার্ন এয়ারলাইন্সের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ বিমানটিকে পরিকল্পিতভাবেই দুর্ঘটনায় ফেলা হয়েছিল।

বিমানটির ব্ল্যাক বক্সের তথ্য অনুসারে এমনটাই দাবি করেছে তদন্তকারী দল। বিবিসির এক প্রতিবেদনে এমনটি বলা হয়।

ওয়াল স্ট্রীট জার্নালের বরাত দিয়ে বিবিসির প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, বিমানের ককপিটে থাকা কারও নির্দেশনাতেই বিমানটি পরিচালিত হচ্ছিল।

প্রাথমিকভাবে মনে করা হয়েছিল, যান্ত্রিক ত্রুটির কারণেই এই দুর্ঘটনা ঘটে। কিন্তু তদন্তে উঠে আসে ভিন্ন তথ্য। কেউ ইচ্ছাকৃতভাবে এই দুর্ঘটনা ঘটিয়েছে বলে দাবি করছে তদন্তকারী দল।

তদন্তে আরও বলা হয়, দুর্ঘটনার দিন পাইলটদের সঙ্গে যোগাযোগ করার চেষ্টা করে এয়ার ট্রাফিক কন্ট্রোল। কিন্তু কোনও ভাবেই সাড়া পাওয়া যায়নি। বিমান থেকেও কোনও বিপদসঙ্কেত পাঠানো হয়নি। তদন্তকারীরা মনে করছেন, ককপিট কারও দখলে চলে গিয়েছিল।

গত মার্চে চায়না ইস্টার্ন এয়ারলাইন্সের বোয়িং ৭৩৭-৮০০ বিমানটি কুনমিং থেকে গুয়াংঝৌ যাচ্ছিল। ২৯ হাজার ফুট উচ্চতা থেকে গুয়াংশির পার্বত্য এলাকায় দুর্ঘটনার কবলে পড়ে বিমানটি। ফ্লাইটরাডার ২৪–এর তথ্য, দুর্ঘটনার সময় বিমানটরি গতি ছিল প্রতি ঘণ্টায় ১ হাজার ১০০ কিমি। দুর্ঘটনায় বিমানে থাকা ১৩২ জন যাত্রী ও ক্রুসহ সবাই নিহত হন।

You might also like