শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে ফেরিসহ সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ

৫৫

ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে নদীর উত্তাল থাকায় মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া বাংলাবাজার নৌরুটে সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ করেছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)।

বিআইডাব্লিউটিসি শিমুলিয়া ঘাটের উপ মহাব্যবস্থাপক (ব্যানিজ্য) শফিকুল ইসলাম জানান, ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের প্রভাবে নদীর উত্তাল থাকায় ভোর সকাল থেকে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দিয়েছেন তারা। ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের প্রভাবে পদ্মায় ঢেউয়ের তোড়ে মুন্সিগঞ্জের শিমুলিয়া দুই নম্বর ফেরিঘাটের পন্টুন দুই ভাগ হয়ে নদীতে ভেসে গেছে। এ ঘটনার পর নিরাপত্তার স্বার্থে ঘাটে নোঙর করা ফেরি নিরাপদে সরিয়ে নিয়েছে কর্তৃপক্ষ। ঘাট এলাকায় পারাপারের অপেক্ষায় রয়েছে ছোট-বড় মিলিয়ে প্রায় ৫ শতাধিক যানবাহন ও কয়েক হাজার যাত্রী।

এর আগে গতকাল (মঙ্গলবার) ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের কারণে দেশের সব নদীবন্দর থেকে যাত্রীবাহী নৌযান চলাচল বন্ধ করে দেয় বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ পরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)। এ আদেশের ফলে শিমুলিয়া- বাংলাবাজার নৌ রুটে চলাচলকারী ৮৭টি লঞ্চ চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। এছাড়া লকডাউন এর শুরু থেকে এই নৌরুটে স্পিডবোট চলাচল বন্ধ থাকায় কোনভাবেই আর নদী পাড়ি দেওয়ার সুযোগ থাকছে না যাত্রীদের।

বরিশালগামী এক যাত্রী ফখরুল ইসলাম জানান, জরুরী প্রয়োজনে বাড়িতে যাওয়া তার একান্ত প্রয়োজন ছিল। সকালে শিমুলিয়া ঘাটে এসে দেখেন ফেরিসহ সকল ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ। বাধ্য হয়ে তিনি ঢাকাতে ফিরে যাচ্ছেন।