স্ত্রীকে খুন করে থানায় স্বামীর আত্মসমর্পণ

রংপুরের পীরগাছার স্ত্রীকে খুন করে থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করেছেন স্বামী মাইনুদ্দীন নামে এক ব্যক্তি। স্ত্রীর পরকীয়ার সম্পর্ক থাকার কারণে তাকে খুন করেছে বলে জবানবন্দি দিয়েছেন মাইনুদ্দীন।

শুক্রবার (৩ জুন) সকাল ৭টার দিকে পীরগাছা উপজেলার খামার নয়া বাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটেছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রংপুর জেলা পুলিশের সহকারী পুলিশ সুপার আশরাফুল আলম পলাশ জানান, সকাল ৭টার দিকে মাইনুদ্দীন থানায় এসে আত্মসমর্পণ করে খুনের কথা স্বীকার করেন। তার এই অপরাধের জন্য তিনি প্রাথমিক জবানবন্দিতে সর্বোচ্চ শাস্তি পেতে রাজি আছেন বলে থানা পুলিশকে জানিয়েছেন।

খুনের দায় স্বীকার করা মাইনুদ্দীনের গ্রামের বাড়ি ঠাকুরগাঁও জেলায়। তার বাবা বশির উদ্দীন। ব্যবসায়িক কারণে দীর্ঘদিন ধরে পীরগাছায় বসবাস করে আসছেন তারা।

স্থানীয়রা বলছেন, মাইনুদ্দীন ও তার স্ত্রীর রাত থেকেই কথা-কাটাকাটি চলছিল। সকালে খুনের বিষয়টি জানতে পারেন তারা। এরই স্বেচ্ছায় থানায় গিয়ে আত্মসমর্পণ করেছেন মাইনুদ্দীন।

পীরগাছা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সরেশ চন্দ্র বলেন, এটি পরকীয়ার কারণে খুন নাকি অন্য কারণে, তদন্তের পর তা জানা যাবে। তবে মাইনুদ্দীন দাবি করেন পরকীয়ার কারণে তিনি স্ত্রীকে হত্যা করেছেন।

সহকারী পুলিশ সুপার আশরাফুল আলম পলাশ জানান, খুনে ব্যবহৃত অস্ত্র উদ্ধারে আসামিকে নিয়ে অভিযানে বের হয়েছেন পুলিশ সদস্যরা। এ ঘটনার সঙ্গে অন্য কেউ জড়িত আছে কি না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।