৬-১৪ মার্চ বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট সেবায় সাময়িক বিঘ্ন ঘটতে পারে

১১২

আগামী ৬ মার্চ থেকে ১৪ মার্চ পর্যন্ত বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ এর সম্প্রচার কার্যক্রমে সাময়িক বিঘ্ন ঘটতে পারে।

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ নিয়ন্ত্রণকারী কর্তৃপক্ষ বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেড (বিএসসিএল) জানিয়েছে, ‘সৌর ব্যতিচার প্রাকৃতিক একটি স্বাভাবিক ঘটনা। সৌর ব্যতিচারের কারণে সব স্যাটেলাইটেরই সম্প্রচারে বিঘ্ন ঘটে।’ব্যতিচার দুটি তরঙ্গের উপরিপাতনের ফলে সৃষ্ট নতুন তরঙ্গের বিস্তারের পর্যায়ক্রমিক হ্রাস-বৃদ্ধির ঘটনাকে বোঝানো হয়। ব্যতিচার যেকোন ধরনের তরঙ্গের ক্ষেত্রেই ঘটতে পারে। সৌর ব্যতিচার আলোর একটি ধর্ম, যা কণিকা তত্ত্বের মাধ্যমে ব্যাখ্যা না করা গেলেও তরঙ্গ তত্ত্বের মাধ্যমে ব্যাখ্যা করা যায়।

বিএসসিএল জানায়, আগামী ৬ মার্চ সকাল ৯টা ৫৪ মিনিট থেকে ৭ মিনিট, ৭ মার্চ সকাল ৯টা ৫২ মিনিট থেকে ১১ মিনিট, ৮ মার্চ সকাল ৯টা ৫০ মিনিট থেকে ১৪ মিনিট, ৯ মার্চ সকাল ৯টা ৪৯ মিনিট থেকে ১৫ মিনিট, ১০ মার্চ সকাল ৯টা ৪৯ মিনিট থেকে ১৫ মিনিট, ১১ মার্চ সকাল ৯টা ৪৯ মিনিট থেকে ১৬ মিনিট, ১২ মার্চ সকাল ৯টা ৪৯ মিনিট থেকে ১৪ মিনিট, ১৩ মার্চ সকাল ৯টা ৫০ মিনিট থেকে ১২ মিনিট ও ১৪ মার্চ সকাল ১০টা থেকে ৯ মিনিট সম্প্রচারে বিঘ্ন ঘটতে পারে।

বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেডের চেয়ারম্যান শাহজাহান মাহমুদ বলেন, ‘সৌর ব্যতিচারে থার্মাল নয়েজের কারণে ট্রান্সপন্ডারে বিম অ্যাফেকটেড হতে পারে। এ সময় নয়েজ লেভেল বেড়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে। নয়েজ লেভেল খুব বেশি বেড়ে গেলে টিভি পর্দা ঝিরিঝিরি বা শব্দ হয় বা বন্ধ হয়ে যায়।’

পৃথিবীর সব স্যাটেলাইটের ক্ষেত্রে এ সমস্যা হবে বলে জানান বাংলাদেশ স্যাটেলাইট কোম্পানি লিমিটেডের চেয়ারম্যান।

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের সেবা নেওয়া টিভি চ্যানেল, প্রত্যন্ত এলাকায় ইন্টারনেট সেবা ও ডাচ বাংলার এটিএম বুথের সেবায় বিঘ্ন ঘটার সম্ভাবনা রয়েছে বলে জানায় কর্তৃপক্ষ। প্রাকৃতিক এ স্বাভাবিক ঘটনার জন্য স্যাটেলাইট কোম্পানি কর্তৃপক্ষ দুঃখ প্রকাশ করেছে।